ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কি

ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কি?

ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কি: আজকে আমরা জানবো ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কি? এই প্রশ্নের উত্তর পেতে আমাদের এই পোস্টটি সম্পূর্ণ পড়ুন। আশা করি আপনারা এই প্রশ্নের উত্তর ভালো ভাবে বুঝতে পারবেন।

ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কি

ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কি?

ক্ষুদ্র শিল্পকুটির শিল্প
সেসব প্রতিষ্ঠানে জমি এবং কারখানা ভবন ব্যতিরেকে অন্যান্য স্থায়ী সম্পদের মূল্য বা প্রতিস্থাপন ব্যয় অনধিক ১.৫০ কোটি টাকা সেসব প্রতিষ্ঠানকে ক্ষুদ্রশিল্প বলে।যা পরিবারের সদস্যদের দ্বারা পূর্ণ অথবা খণ্ডকালীন সময়ে উৎপাদন বা সেবামূলক কর্মকাণ্ডে নিয়োজিত তাকে কুটির শিল্প বলে।
স্বল্প পুঁজি ও স্বল্পসংখ্যক কর্মচারী নিয়ে এক মালিকানা, অংশীদারি অথবা সমবায়ের ভিত্তিতে গড়ে ওঠা শিল্পকে ক্ষুদ্র শিল্প বলে।পরিবারের সদস্যদের দ্বারা পারিবারিক পরিবেশে গড়ে ওঠা শিল্পই কুটির শিল্প।
ক্ষুদ্র শিল্প পরিবার ভিত্তিক নয়।কুটির শিল্প প্রধানত পরিবারভিত্তিক এবং উদ্যোক্তা নিজেই এর কারিগর।
ক্ষুদ্র শিল্প কে বৃহত্ শিল্পের ইউনিট বলা হয়।কুটির শিল্পকে খণ্ডকালীন উৎপাদন ইউনিট বলা হয়।

তো আজকে আমরা দেখলাম যে ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের মধ্যে পার্থক্য কি এবং আরো অনেক বিস্তারিত বিষয় । যদি পোস্ট ভালো লাগে তাহলে অব্যশয়, আমাদের বাকি পোস্ট গুলো ভিসিট করতে ভুলবেন না!

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *